• chanakyabangla

আজকের বিষয় ইতিহাসের প্রেক্ষাপটে উল্টো চিত্র (বিষয় চীন)


লেখক এর কলমে

লেখক বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ (তুষার রায়)

আজকের বিষয় ইতিহাসের প্রেক্ষাপটে উল্টো চিত্র :- চিন সম্প্রতি ভেবেছিল তাদের পাহাড়ি হাল্কা আর্মর ভেহিকেল দেখে ভারতীয় জাবাজরা পিছু হটবে কিন্তু সে গুড়ে গালওয়ানের বালি । ভারত মেক ইন ইন্ডিয়ার ছটায় ডি আর ডি ও এবং রাশিয়ার সুরক্ষা এজেন্সি মিলে তৈরি করে ফেলেছে বি এম পি 2 সারথ আর্মর ভেহিকেল যা সুকৌশলে ডেপ্লয় করা হয়েছে এই যমদূত ভারি ট্যাঙ্কের থেকে হাল্কা হোয়ায় পাহাড়ি যুদ্ধে সক্ষম । এক ডিফেন্স নিউজ চ্যানেল থেকে প্রাপ্ত সূত্র অনুযায়ী গত 29 - 30 আগষ্ট লালচুরা তাদের আর্মর ভেহিকেল নিয়ে ব্লাক টপের দিকে এগোতে থাকলে ভারতের স্পেশাল ফ্রন্টিয়ার ফোর্স Bmp 2 সারথ কে নিয়ে প্রাচীরের মতো কভার করলে ও গান পজিশন তাক করলে চিনাদের চায়না মাল ঘাবড়ে যায় ও ব্যাকওয়ার্ড মুভমেন্ট করে আর সারথ আর্মস amunition নিয়ে এগোতে থাকে আর পাহাড়ি দক্ষ যোদ্ধারা ব্লাকটপ দখল করে নেয়।

BMP 2 কি? ডি আর ডি ও এবং রাশিয়া মিলে এক হাল্কা কিন্তু ট্যাঙ্ক সমতুল্য আর্মর ভেহিকেল তৈরি করেছে এতে আছে 300 hp ইঞ্জিন যা স্থলে 65 km/h এ এবং জলে 7km/h এ ফরোয়ার্ড মুভ করতে সক্ষম ভেতরে 7 জনের মাউন্টেন স্ট্রাইক ফোর্স ও তাদের হেভি ওয়েপন যেমন আর পি জি, মর্টার লাইট মেশিনগান বহন করতে সক্ষম আর এর দুর্ভেদ্য স্টিল বডি এর ক্রু মেম্বারদের সুরক্ষা প্রদান করে । এতে আছে 30mm cannon অর্থাৎ কামান যার এফেক্টিভ রেঞ্জ 4-5 কিমি একটি 7. 62 mm হেভি মেশিনগান আছে যার সুনির্দিষ্ট লক্ষ 2 কিমি এছাড়াও anti tank মিসাইল ও মর্টার রয়েছে।

এবার সময় এসেছে যেমন কুক, বর্তমানে তিন বাহিনীকে নিয়ে যে থ্রি কর্পস কোর গঠিত হয়েছে তা এক কথায় শ্রেষ্ঠতম পদক্ষেপ । আর ভারতের রয়েছে পাহাড়ি যুদ্ধে পারদর্শী দক্ষ সেনা যারা বিনা অক্সিজেন সিলিন্ডারে হাই আল্টীটিউড ওয়ার এ দক্ষ ভারত বরাবরই 14 এবং 15 কর্পস কে রেডিরেখেছে জম্মুকাশ্মীর সহ লাদাখে আর এর ফলে অনেক সেনাই পাহাড়ি যুদ্ধের জন্যে যোদ্ধা জীবনের অনেকটা সময় এখানে মোতায়েন থেকে অভিজ্ঞতা সঞ্চয় করেছেন । এখন অস্ত্র শুধু প্রদর্শন নয় তা যেখানে যেমন সেখানে সেরকম ভাবে প্রয়োগের সময় এসেছে যা কথায় মিটবে না তা বল প্রয়োগে করা উচিৎ বিনা যুদ্ধে নাহি দেবো সুচাগ্র মেদিনী। জয় হিন্দ ভারত মাতা কি জয় ।