• chanakyabangla

' দাদার অনুগামী ' লেখা টি - শার্ট পরে ত্রান বিলি


' দাদার অনুগামী ' লেখা টি - শার্ট পরে ত্রান বিলি

চাণক্য বাংলা ওয়েব ডেস্ক:

দলের সমান্তরাল ভাবে নিজের মতো করে তাঁর জনসংযোগ কর্মসূচি নিয়ে বারবারই প্রশ্ন তুলেছেন তৃণমূলের একাংশ নেতা-কর্মী। তা নিয়ে রাজনৈতিক মহলে জল্পনাও অব্যাহত। মাস কয়েক আগে দলে সাংগঠনিক পরিবর্তনের পর তাঁর ক্ষমতা খর্ব করার অভিযোগ ওঠায় সেই জল্পনা আরও বেড়েছে। কিন্তু জেলায় তিনি যে নিজের মতো করেই জনসংযোগ চালিয়ে যেতে বদ্ধ পরিকর এবং মানুষের পাশে দাঁড়াতে চান তা ফের দেখা গেল।

সুবর্ণরেখা নদীর জলে প্লাবিত রামনগর-১ ব্লকের বাধিয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের বেশ কয়েকটি গ্রামের দুর্গতদের জন্য ত্রাণ পাঠালেন মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। বুধবার ওই সব ত্রাণ এবং ত্রিপল নিয়ে শুভেন্দুর ছবি সহ পোস্টার ঝুলিয়ে এবং ‘আমরা দাদার অনুগামী’ লেখা টি শার্ট পরে তৃণমূল কর্মীরা বিলি করলেন প্লাবিত এলাকায়। এদিন পাঁচশ জনের হাতে ত্রাণ এবং দুশো জন দুর্গতকে ত্রিপল দেওয়া হয়।

উল্লেখ্য, রামনগরের বাধিয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের উত্তর বাধিয়া, কান্ড গ্রাম, কচুয়া, বারবাটিয়া, বাখরাবাদ গ্রাম গত শনিবার সুবর্ণরেখা নদীর জলে প্লাবিত হয়। সুবর্ণরেখা নদীর সঙ্গে যুক্ত ওড়িশা কোস্ট ক্যানাল ওইসব গ্রামের পাশ দিয়ে চলে গিয়েছে। নীচু এলাকা হওয়ায় এখানে বর্ষায় জল সে ভাবে জমার আগেই নিষ্কাশনের ব্যবস্থা করা হয়। কিন্তু এ বার করোনা ও আমপানে পরিস্থিতির বদলে এবং নিম্নচাপের ভারী বৃষ্টিতে সুবর্ণরেখার অতিরিক্ত জল বিপদের মুখে ঠেলে দিয়েছে এই এলাকার কয়েক হাজার বাসিন্দাকে।

এদিন ত্রাণ বিলি কর্মসূচির নেতৃত্বে থাকা রামনগর-২ ব্লক তৃণমূলের অন্যতম সাধারণ সম্পাদক গৌতম জানা ও জেলা পরিষদ সদস্য সুরঞ্জনা মাইতি বলেন, ‘‘দুর্গতরা সহযোগিতা চেয়ে আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছিল। সে কথা জানার পর শুভেন্দুবাবু তাঁদের পাশে দাঁড়ানোর নির্দেশ দেন। তাই ‘দাদার অনুগামী’ হিসেবে দুর্গতদের ত্রাণ এবং ত্রিপল দিয়েছি ।