• chanakyabangla

রবিবার ফের এক বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হল।


চানক্য বাংলা ওয়েব ডেস্ক:রবিবার ফের এক বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হল। এবার হুগলির গোঘাট এলাকার খানাটি গ্রামে। একটি গাছ থেকে গণেশ রায় নামে ওই ব্যক্তির দেহ ঝুলতে দেখা যায়। স্থানীয় বিজেপি নেতা–কর্মীদের অভিযোগ, শাসকদল তৃণমূল এই কাণ্ড ঘটিয়েছে। তৃণমূল অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছে।

শনিবার সন্ধে থেকে গণেশবাবুকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। বিজেপি–র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ দাবি করেছেন, তৃণমূলই গণেশকে খুন করে গাছে ঝুলিয়ে দিয়েছে। স্থানীয় বিজেপি কর্মীদের মনে ত্রাস জাগাতেই এই কাজ করা হয়েছে। তাঁর কথায়, ‘‌এটা একটা নতুন প্রবণতা হয়েছে, বিজেপি কর্মীদের ঝুলিয়ে খুন করা। আমরা প্রতিরোধ গড়ে তুলব। বিজেপি–র জনপ্রিয়তা বাড়ছে বলে তৃণমূল ভয় পাচ্ছে।’‌ 

সরব হয়েছেন বিজেপি নেত্রী লকেট চ্যাটার্জি। তিনি বললেন, ‘‌এই নৃশংসতা বন্ধ করতে হবে। গণতন্ত্রের রক্ষকরা কোথায়?‌ পশ্চিমবঙ্গে বিজেপি কর্মীদের খুন নিয়ে তিনি চুপ কেন?‌’‌ এদিন বিজেপি কর্মীরা গোঘাট–আরামবাগ সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখান। 

২৮ জুলাই পূর্ব মেদিনীপুরের হলদিয়াতে বিজেপি–র বুথ সভাপতির ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। তার আগে হেমতাবাদের বিজেপি বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায়ের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। উত্তর দিনাজপুরে তাঁর বাড়ির কাছেই মেলে দেহ। তাছাড়া বেশ কয়েক জন বিজেপি কর্মীর দেহও বিভিন্ন সময়ে উদ্ধার হয়েছে। বিজেপি বারবার তৃণমূলের দিকে আঙুল তুলেছে। যদিও অভিযোগের প্রমাণ মেলেনি।